রিচার্ড ব্রানসন জীবনী | Richard Branson Biography in Bengali

Richard Branson Biography in Bengali

Sir Richard Branson, Knighted by Buckingham Palace, রিচার্ড ব্রানসন ইংল্যান্ডের বিখ্যাত ব্যবসায়ী ধনকুবের, Virgin Airlines এর প্রতিষ্ঠাতা এবং পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ ধনী ব্যবসায়ীদের মধ্যে অন্যতম একজন, তাঁর আরও যে সকল পরিচয় রয়েছে তা হচ্ছে লেখক, উদ্যোগপতি, ইনোভেটর, বিজনেস ম্যাগনেট, বর্তমানে তিনি 400 অধিক কোম্পানির মালিক।

রিচার্ড ব্রানসন এর জীবনী যে কাউকে উৎসাহিত করবে উজ্জীবিত করবে এবং জীবনকে নতুন ভাবে ভাবা এবং নতুন কিছু করার উৎসাহে ভরিয়ে তুলবে, ছোটবেলায় তিনি যে মানসিক প্রতিবন্ধকতা কাটিয়ে আজকের বিজনেস মেগনেট খেতাব অর্জন করেছেন সেখান থেকে অনেক শিক্ষণীয় বিষয় রয়েছে ছাত্র থেকে ব্যবসায়ী সকলের।

Richard Branson Biography in Bengali
Richard Branson

Richard Branson Biography in Bengali

নাম: রিচার্ড চার্লস নিকোলাস ব্রানসন
জন্ম: ১৯ জুলাই ১৯৫০, লন্ডন, ইংল্যান্ড
জাতীয়তা: ব্রিটিশ
পেশা: ব্যাবসায়ী, লেখক
পরিচিতি: ভার্জিন গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা
স্ত্রী: ক্রিস্টেন টোমাসি
পিতা: টেড ব্রানসন
মাতা: ইভা ব্রানসন

Richard Branson – শিক্ষা জীবন

Dyslexia তে পীড়িত হওয়ার কারণে ছোটবেলা থেকেই পড়াশোনায় ছিলেন অমনোযোগী তিনি নিজে পড়তে পারতেন না আবার পড়া খুব বেশি মনে রাখতে পারতেন না, তাই স্কুল জীবনে তাকে অনেক চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হয়।

যেহেতু তিনি নিজে পড়তে পারতেন না তাই তিনি অন্যের সহায়তা নিতেন যে তাকে পড়া বলে দেবে এবং তিনি শুধু বসে বসে শুনতেন, তবে যেহেতু তিনি খুব বেশি মনে রাখতে পারতেন না তাই তার শিক্ষাজীবন মাত্র 16 বছর বয়সেই সমাপ্ত হয়ে যায়।

ব্রানসন এর জীবনে মায়ের অবদান

তার মা ইভা ব্রানসন  ছোটবেলা থেকেই তার প্রতিভা বিকাশে এবং কঠিন পরিস্থিতির  মুখোমুখি  হওয়ার জন্য তাকে বিভিন্নভাবে অনুপ্রাণিত এবং সাহস যুগিয়েছেন, তার মায়ের সাথে যখন তিনি গাড়ি করে বাড়ী ফিরতেন  তার মা তাকে কয়েকটি রাস্তা দূরেই একা ছেড়ে দিতেন বাড়ি খুঁজে হেঁটে আসার জন্য।

তার মামার বাড়ি ছিল তাদের বাড়ি থেকে প্রায় 50 কিলোমিটার দূরত্বে, একবার তার মা তাকে বেশ কিছু জিনিস সাথে দিয়ে সাইকেলে করে তার মামার বাড়িতে তাকে একা পাঠান, তার মা তাকে শুধু খাবার  দিয়েছিলেন এবং জলের বোতলটা খালি দিয়েছিল যাতে করে সে রাস্তায় জল খুঁজে নেয়, রিচার্ড ব্রানসন মামার বাড়িতে গিয়ে জিনিস পৌঁছে দিয়ে পরের দিন সাইকেল চালিয়ে বাড়ি ফিরে আসে।

ব্রানসন এর মা  তার মধ্যে কখনোই খারাপ কোনো অনুভূতি এবং আবেগের প্রকাশ ঘটতে দেননি,  ব্রানসন যখন রেগে যেতেন তখন তার মা বলতেন তুমি এই কথাগুলো আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে বল, আর তোমার মুখের অভিব্যক্তি দেখো।

ব্রানসন যখন আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে রেগে কথা বলতেন তখন তার নিজের চেহারা এবং অভিব্যক্তি দেখে সে নিজেই লজ্জিত এবং আতঙ্কিত হয়ে পড়তেন।

ব্র্যানসনের কথা অনুযায়ী এই ঘটনাটি তার জীবনের অনেক বড় শিক্ষণীয় ঘটনা এবং তার পরবর্তীতে  তার ব্যবহার এবং চিন্তা ভাবনায় সুন্দর পরিবর্তন  নিয়ে এসেছিল, এরপর থেকে তিনি কখনোই কারো সঙ্গে রেগে কথা বলতেন না এখনও তিনি সব সময় হাসি মুখে থাকেন।

Virgin Airlines – প্রতিষ্ঠার অবাক করা ঘটনা

রিচার্ড ব্রানসন একবার তার গার্লফ্রেন্ড এর সাথে দেখা করার জন্য ইংল্যান্ড থেকে পুর্তোরিকো যাচ্ছিলেন বিমানে উঠে দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করার পরেও বিমান না ছাড়ার কারণে সবাই চিন্তিত হয়ে পড়েন। কিছুক্ষন পরে ঘোষণা হয় ফ্লাইট ক্যানসেল সেদিন ওই রুটে অন্য ফ্লাইট না থাকায় সকল যাত্রীরা প্রতিবাদ করতে থাকেন।

ব্রানসন তখন তার পরিচিত সকল প্রাইভেট বিমান কোম্পানীকে ফোন করেন প্রাইভেট বিমানের ভাড়া জেনে নেন। তারপর তিনি নীরবে সেইসব ভাড়া মূল্যায়ন করে সকল যাত্রীদের কাছে বলতে থাকেন এক টিকেটের মূল্য টাকা। প্রায় সকল যাত্রীকে রাজি করিয়ে ব্রানসন প্রাইভেট বিমান ভাড়ায় পুর্তোরিকো পৌঁছান।

যাত্রাপথে তিনি তার সাহসের জন্য সকল যাত্রীদের কাছথেকে প্রশংসা অর্জন করেন। বিমান থেকে নামার সময় একজন তাকে বলেন পরিষেবা আরো ভালকরে পরের বার আমি তোমার বিমানেই চড়তে চাই। ব্যাপারটি মজা করার জন্য হলেও ব্রানসন সেটিই তার পরের লক্ষ হিসেবে নিয়েছিলেন।

এরপরে তিনি নামকরা বিমান নির্মাতা সংস্থা বোয়িং বিমান কোম্পানির সাথে যোগাযোগ করেন পুরাতন বিমান ভাড়ায় নেয়ার জন্য । প্রথমে তারা রাজি না হলেও ব্রানসনের ব্যাবসায়িক উদ্যমের জন্য রাজি হয়ে যান।

মাত্র ২০০০ ডলারের পুঁজিতে তার বিমান সংস্থার সূচনা হয়। কারণ পুর্তোরিকো যাওয়ার জন্য তার ভাড়া করা প্রাইভেট বিমানের ভাড়া ছিল ২০০০ টাকা। তাই এটিকেই তার virgin air এর মূলধন ঘোষণা করা হয়।

প্রথম বাণিজ্যিক মহাকাশচারী

রিচার্ড ব্রানসনের স্পেস ট্রাভেল করা নির্ধারিত ছিল ২০২২ সামার মৌসুমে কিন্তু যখনি তিনি জানতে পারেন মার্কিন ধনকুবের আমাজান ফাউন্ডার জেফ বেজোস ২০ জুলাই 2021 মহাকাশে যাচ্ছেন তখনি তিনি তার মহাকাশ যাত্রা এগিয়ে নিয়ে আসেন।

আর ২০২১ সালের ১১ জুলাই মহাকাশের প্রথম বাণিজ্যিক মহাকাশচারী হিসেবে পৃথিবীর বাইরে পৌঁছে যান, আর জেফ বেজোস কে পিছনে ফেলে প্রথম বাণিজ্যিক মহাকাশচারী নামটি নিজের করে নেন।

Richard Branson awards – পুরস্কার এবং সম্মান

  • 1992 সালে, আমেরিকান একাডেমি অফ অ্যাচিভমেন্টের গোল্ডেন প্লেট পুরস্কার পান।
  • 1993 সালে, লফবরো ইউনিভার্সিটি থেকে সম্মানসূচক ডক্টর অফ টেকনোলজি ডিগ্রি প্রদান করা হয়।
  • 30 ডিসেম্বর 1999 তারিখে তার নববর্ষের সম্মানের তালিকায়, দ্বিতীয় এলিজাবেথ তাকে “উদ্যোক্তাতার সেবা” এর জন্য নাইট ব্যাচেলর সম্মান প্রদান করার তার অভিপ্রায় নির্দেশ করেছিলেন।
  • তাকে 30 মার্চ 2000 তারিখে চার্লস, প্রিন্স অফ ওয়েলসের দ্বারা বাকিংহাম প্যালেসের একটি স্থাপনায় নাইট উপাধি দেওয়া হয়।
  • এছাড়াও 2000 সালে, বাণিজ্যিক বিমান পরিবহনে তার কৃতিত্বের জন্য টনি জানুস পুরস্কার পান।
  • 2000 সালে, সান দিয়েগো এয়ার অ্যান্ড স্পেস মিউজিয়ামের ইন্টারন্যাশনাল এয়ার অ্যান্ড স্পেস হল অফ ফেমে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল।
  • ব্র্যানসন 2002 সালে বিবিসির 100 গ্রেটেস্ট ব্রিটিশদের তালিকায় 85 তম স্থানে ছিলেন এবং জনসাধারণের দ্বারা ভোট দেওয়া হয়েছিল।
  • টাইম ম্যাগাজিনের 2007 সালের বিশ্বের 100 জন প্রভাবশালী ব্যক্তির তালিকায়ও ব্র্যানসনকে স্থান দেওয়া হয়েছিল।
  • 7 ডিসেম্বর 2007-এ, জাতিসংঘের সিটিজেন অফ দ্য ওয়ার্ল্ড অ্যাওয়ার্ড।
  • 24 জানুয়ারী 2011-এ, জার্মান মিডিয়া পুরস্কার।
  • 14 নভেম্বর 2011-এ, ISTA পুরস্কারে ভূষিত করা হয়।
  • 11 ফেব্রুয়ারী, 2012-এ, সঙ্গীত শিল্পে অবদানের জন্য ব্র্যানসনকে ন্যাশনাল একাডেমি অফ রেকর্ডিং আর্টস অ্যান্ড সায়েন্সেসের রাষ্ট্রপতির মেরিট পুরস্কারে ভূষিত করা হয়।
  • 2 জুন 2013-এ, ব্র্যানসন লিথুয়ানিয়ার কাউনাসের কাউনাস টেকনোলজিক্যাল ইউনিভার্সিটি থেকে সম্মানসূচক ডক্টরেট পান।
  • 15 মে 2014-এ, ব্র্যানসন 2014 সালের বিজনেস ফর পিস অ্যাওয়ার্ড পান।
  • 21শে সেপ্টেম্বর 2014-এ, ব্র্যানসনকে সানডে টাইমস গত পাঁচ দশকের সবচেয়ে প্রশংসিত ব্যবসায়ী হিসাবে স্বীকৃতি দেয়।
  • অক্টোবর 9, 2014-এ, ব্র্যানসনকে আউটস্ট্যান্ডিং অর্গানাইজেশন দ্বারা #1 LGBT মিত্র হিসাবে নামকরণ করা হয়েছিল।
  • 29 অক্টোবর 2015-এ, ব্র্যানসন যুক্তরাজ্য-ভিত্তিক কোম্পানি রিচটোপিয়া কর্তৃক 100 জন সবচেয়ে প্রভাবশালী ব্রিটিশ উদ্যোক্তার তালিকায় 1 নম্বরে তালিকাভুক্ত হয়।
  • 2015 সালের অক্টোবরে, ব্র্যানসন জাতিসংঘের উন্নয়ন কর্মসূচির শান্তি পুরস্কার ডিনারে ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইসিস গ্রুপের চেয়ার পেয়েছিলেন।

Please Note: রিচার্ড ব্রানসন জীবনী Richard Branson Biography in Bengali সম্পর্কে আপনার কাছে যদি আরও তথ্য থাকে, বা আপনি যদি প্রদত্ত তথ্যে কিছু ভুল খুঁজে পান, তাহলে অবিলম্বে মন্তব্য এবং ইমেলে আমাদের লিখুন, আমরা এটি আপডেট করতে থাকব, ধন্যবাদ।

Read More

রিচার্ড ব্রানসন এর উক্তি – Richard Branson Quotes in Bengali

Leave a Comment